আজ ৪ঠা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

‘জাতিকে ধর্মহীন করার লক্ষ্যে প্রণীত শিক্ষানীতি বাস্তবায়ন করতে দেয়া হবে না’

আজ ৪ ডিসেম্বর ২০২০ ইংরেজি রোজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন চট্টগ্রাম মহানগরের উদ্যোগে আইএবি মিলনায়তনে ওয়ার্ড প্রতিনিধি সম্মেলন-২০২০ অনুষ্ঠিত হয়। নগর সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ নাজিম উদ্দিনের সঞ্চালনায় এতে সভাপতিত্ব করেন নগর সভাপতি রিদুয়ানুল হক শামসী।

উক্ত ওয়ার্ড প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক ও চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি আলহাজ্ব জান্নাতুল ইসলাম। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় জয়েন্ট সেক্রেটারী জেনারেল একেএম আব্দুজ্জাহের আরেফী।

প্রধান অতিথি তার আলোচনায় বলেন, ‘ছাত্র সমাজকে নির্দিষ্ট লক্ষ্য অর্জন করতে হলে প্রয়োজন প্রচুর অধ্যয়ন। পাশাপাশি নিজেকে গঠনের জন্য পরিশুদ্ধ আমল। ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন দেশ ও জাতিকে উন্নত চরিত্রের অধিকারী একঝাঁক মেধাবী তরুণ উপহার দিতে চায়। তাই এখন থেকেই সকল ওয়ার্ড দায়িত্বশীলকে নিজ নিজ এলাকায় ছাত্রদের মাঝে আদর্শ ও নৈতিকতা শিক্ষার পাশাপাশি দেশ গঠনে সর্বোচ্চ ভূমিকা রাখতে হবে। এ-দেশ থেকে দুর্নীতি, দুঃশাসন, সন্ত্রাস ও মাদক নির্মূল করতে হলে সুশৃঙ্খল সংগঠনের বিকল্প নেই। তাই এই সমাজ ও রাষ্ট্রকে আল্লাহর দেওয়া জীবনবিধান অনুযায়ী পরিচালিত করার লক্ষ্যে সবাইকে সর্বোচ্চ চেষ্টা করে যেতে হবে। তবেই সম্ভব এ-দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করা।”

প্রধান বক্তার বক্তব্যে একেএম আব্দুজ্জাহের আরেফি বলেন, “ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের প্রত্যেক ওয়ার্ড দায়িত্বশীলকে নিজের একাডেমিক পড়াশুনায় মনোযোগী হতে হবে। পাশাপাশি তাকে নীতি-নৈতিকতার দিক থেকেও ছাত্র সমাজের মধ্যে আইডল হতে হবে। ইসলামকে নিজের ব্যক্তিগত, সামাজিক ও রাষ্ট্রীয় জীবনে বাস্তবায়ন করার লক্ষ্যে সাংগঠনিক কার্যক্রমকে আরো তরান্বিত করতে হবে এবং জীবনের সকল ক্ষেত্রে গুরুত্ব প্রদান করতে হবে। তার মধ্য দিয়েই তৈরী হবে আগামীর কর্ণধার, রাহবার ও সিপাহসালার কর্মবীর।”
অধুনা প্রণীত শিক্ষানীতির বিরুদ্ধে প্রধান বক্তা হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। তিনি দাবী জানান, “ধর্মীয় শিক্ষাকে অবশ্যই পরীক্ষার মধ্যে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে। অন্যথায় জাতীকে ধর্মহীন করার চক্রান্তে প্রণীত এ শিক্ষা নীতি বাংলাদেশে বাস্তবায়ন করতে দেওয়া হবে না।”

সভাপতির বক্তব্যে রিদওয়ানুল হক শামসী বলেন, “ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে নিজ নিজ ক্যাম্পাসে মেধাতালিকায় জায়গা করে নিতে হবে এবং সকলের কাছে আস্হাভাজন হতে হবে। এর মাধ্যমেই আমরা নতুন এক সোনালী সূর্যোদয় ঘটাতে পারবো ইনশাআল্লাহ। ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের দাওয়াত তৃণমূলে ছড়িয়ে দেয়ার জন্য ওয়ার্ড দায়িত্বশীলদের মূল ভূমিকা পালন করতে হবে।”

আরও বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চট্টগ্রাম মহানগরের ছাত্র ও যুব বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা মুছলেহ উদ্দিন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন চট্টগ্রাম মহানগরের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহীম খলিল, ইশা ছাত্র আন্দোলন চট্টগ্রাম মহানগরের সহ-সভাপতি তানভীর হোসাইন, সাংগঠনিক সম্পাদক জিল্লুর রহমান, প্রশিক্ষণ সম্পাদক আবদুর রহমান রবিন সহ মহানগরীর বিভিন্ন থানা ও ওয়ার্ড শাখার প্রতিনিধিবৃন্দ।

আপনার মতামত দিন
0Shares

স্যোসাল মিডিয়াতে দেখুন আমাদের সংবাদ

Follow us on Facebook Follow us on Twitter Follow us on Pinterest 0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     একই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ