আজ ৩রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

নীতি ও আদর্শ জলাঞ্জলী দিয়ে ইসলামের বিজয় সম্ভব নয়: পীর সাহেব চরমোনাই

বিএম মাহদি হাসান, নরসিংদী (জেলা) সংবাদদাতা : শনিবার (৭ অক্টোবর’১৭) নরসিংদীর পাচঁদোনা পূর্ব বাজার আল কারীম জামে মসজিদ এর উন্নয়নকল্পে পাচঁদোনা স্যার কেজী গুপ্ত উচ্চ বিদ্যালয় ময়দানে বিশাল ইসলামী মহাসম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর, আমীরুল মুজাহিদীন আলহাজ্ব হযরত মাওলানা মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম (পীর সাহেব চরমোনাই)।
প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, কুরআন-সুন্নাহ থেকে দূরে সরে থাকার কারণেই মুসলমানরা সবচেয়ে লাঞ্ছনা ও বঞ্চনার শিকার। এখন যদি মুসলমানদের হারানো গৌরব ফিরে পেতে হয় তাহলে কুরআন-সুন্নাহর উপর আমল বাড়াতে হবে। সকলকে ইসলামের সুমহান আদর্শের পতাকাতলে ফিরে আসতে হবে। নায়েবে নবী হযরত উলামায়ে কেরামের অনৈক্যের কারণে তাগুতী ও আল্লাহদ্রোহী শক্তিগুলো আমাদের মাথার উপরে জেঁকে বসেছে। নীতি ও আদর্শ জলাঞ্জলী দিয়ে অনেকে ইসলামের বিজয় করতে চান। তাগুতের সাথে সংমিশ্রণ করে ইসলাম বিজয়ের ইতিহাস নেই। দেশের যে দূরাবস্থা চলছে তাতে উলামায়ে কেরামকে নীতি ও আদর্শের প্রশ্নে আপোসহীন থাকতে হবে। প্রচলিত আদর্শ বিবর্জিত রাজনীতির করালগ্রাস থেকে ফিরে এসে আদর্শ রাজনীতি প্রবর্তন এবং রাজনীতিতে গুণগত পরিবর্তনে হযরত উলামায়ে কেরামকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে। উলামায়ে কেরামকে ক্ষমতার মোহ ত্যাগ করে জাতিকে সঠিকপথে পরিচালিত করতে নেতৃত্বে এগিয়ে আসতে হবে। উলামায়ে কেরামকে জেনে-বুঝে ও অত্যন্ত সতর্কভাবে পা ফেলতে হবে।
পীর সাহেব চরমোনাই আরো বলেন, ইসলামী বিপ্লবে সর্বশ্রেণী ও পেশার মানুষের অংশগ্রহণ প্রয়োজন। শুধুমাত্র একশ্রেণির মানুষের উপর নির্ভর থাকলে ইসলাম প্রতিষ্ঠা সুদুর পরাহত হবে।
পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, কত বড় অসভ্য ও বর্বর হলে নিজ দেশের নাগরিকদের উপর হত্যাযজ্ঞ, ধর্ষণ, লুন্ঠন, বাড়ী-ঘর জ্বালিয়ে দিতে পারে। পৃথিবীর ইতিহাসে এমন জঘন্য বর্বরতা আর কোথাও নাই যা মিয়ানমার সরকার করছে তাদের নাগরিকদের উপর। আর বিশ্বাসী অবাক বিস্ময়ে এগুলো দেখছে। জাতিসংঘ তাদের কেন এ্যাকশন নিচ্ছে না এহেন বর্বরতা বিরুদ্ধে। আর কত লাশ হলে, আর কত নারী তাদের সভ্রম হারালে, আর কত শিশু হত্যা জাতিসংঘ তাদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিবে বিশ্ববাসী জানতে চায়? তিনি আরো বলেন, মিয়ানমারে রোহিঙ্গা হত্যা অতি তাড়াতাড়ি বন্ধ করুন, নাহলে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ লংমার্চ সহ বড় ধরনের কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে।
 

আপনার মতামত দিন
2.3K+Shares

স্যোসাল মিডিয়াতে দেখুন আমাদের সংবাদ

Follow us on Facebook Follow us on Twitter Follow us on Pinterest 0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     একই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ