আজ ৪ঠা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৭ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

পাঠ্যবই নিয়ে ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে নারায়ণগঞ্জ সদরে ইশা ছাত্র আন্দোলনের মানববন্ধন অনুষ্ঠিত

ইকবাল হোসাইন, নারায়ণগঞ্জ (সদর) সংবাদদাতা : ২০ জুলাই’১৭ (বৃহস্পতিবার) বাদ আসর চাষাড়া প্রেসক্লাব চত্তরে কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচি থানায় থানায় মানববন্ধন ও শিক্ষা অফিসার বরাবর স্মারকলিপি পেশ এর অংশ হিসেবে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ সদর থানা শাখার উদ্যোগে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ সদর থানা শাখার মুহতারাম সভাপতি মুহাম্মদ শফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও মুহাম্মাদ মাহদী হাসান এর সঞ্চালনায় উক্ত মানব বন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ মহানগরের সংগ্রামী সভাপতি জননেতা মুফতী মাসুম বিল্লাহ।
প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার বিপ্লবী সহ- সভাপতি ঢাকা আলিয়ার মেধাবী ছাত্র মুহাম্মাদ ইমদাদুল হক।
প্রধান অতিথি বলেন, পাঠ্যসূচি সংশোধনের নামে হিন্দুয়ানী সিলেবাস পুনঃস্থাপনের যে ষড়যন্ত্র চলছে, তা কোনভাবেই বাস্তবায়ন করতে দেয়া হবে না। শিক্ষামন্ত্রী পাঠ্যবই সংশোধনের জন্য চিহ্নিত বাম ঘরানার কিছু শিক্ষাবিদদের নিয়ে যে কমিটি করেছে, তাদের প্রতি দেশের সচেতন নাগরিকদের কোন সমর্থন ছিল না। জনগণের যে ধারনা ছিল, পাঠ্যবই সংশোধনের প্রস্তাবে তাই ঘটেছে। হিন্দুয়ানী সিলেবাস পুনঃস্থাপনের জন্য শিক্ষামন্ত্রী যে নাটক সাজিয়েছে এর পরিনাম শুভ হবে না। বাম-সেকুলারদের আস্ফালনে সরকার যদি আবারো হিন্দুয়ানী সিলেবাস পুনঃস্থাপনের আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত নেয়, তবে ছাত্র জনতা ঐক্যবদ্ধ ভাবে তা প্রতিহত করে ছাড়বে। আর সে উদ্ভট পরিস্থিতির জন্য সরকারকেই তার দায়ভার গ্রহন করতে হবে। পাঠ্যবই মূল্যায়ন করার জন্য শিক্ষামন্ত্রী যে কমিটি করেছে, তা বাতিল করতে হবে। এবং বিতর্কিত কমিটির কোন সুপারিশ গ্রহণ করা হলে সারা দেশে আন্দোলনের দাবানল জ্বলে উঠবে।
প্রধান বক্তা বলেন, ইসলামী শিক্ষানীতি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন ব্যতিত আদর্শ ও দক্ষ জাতি গঠন সম্ভব নয় । ইতিপূর্বে আমরা অনেক ঘাম ঝড়িয়ে পাঠ্যপুস্তকে পরিবর্তন এনেছি। এবার প্রয়োজনে বুকের তাজা রক্ত দিবো। তারপরেও এই ষড়যন্ত্র বাস্তবায়ন করতে দেয়া হবে না। বাম সেক্যু্লারদের অশুভ শক্তির আস্ফালন সহ্য করা হবে না। দাবি আদায় না হলে ছাত্র জনতার আন্দোলন কি জিনিস, কাকে বলে, কত প্রকার হতে পারে ইশা ছাত্র আন্দোলন তা সরকারকে দেখিয়ে দিবে ইনশাআল্লাহ।
সভাপতি তার বক্তব্যে বলেন, আদর্শ ও দক্ষ জাতি গঠনে ইসলামী শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন প্রচলিত ছাত্র রাজনীতি বিশ্বাসী নয়। ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন রাজনীতিতে নৈতিকতা, আদর্শ, শিক্ষাগ্রহে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ এবং আদর্শ ও দক্ষ জাতি গঠনে বিজ্ঞান ভিত্তিক কর্মমুখী সর্বজনীন ইসলামী শিক্ষা ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সর্বদা সচ্চার। বাম-সেক্যু্লাররা পাঠ্যসূচিকে বিষাক্ত করার নতুন এক প্রস্তাবনা মেনে নেয়া হবে না। সেজন্য মুসলমানদের সোচ্চার থাকতে হবে। নাস্তিক ও ইসলাম বিদ্বেষীদের সকল ষড়যন্ত্র রুখে দিতে ইশা ছাত্র আন্দোলন মাঠে ময়দানে কাজ করে যাচ্ছে।
মানববন্ধনে আরো উপস্থিত ছিলেন আহমাদ কবির, মুহাম্মাদ মিরাজুল ইসলাম, মুহাম্মাদ ওমর ফারুক, মুহাম্মাদ ইকবাল হুসাইন, মুহাম্মাদ শরিফ হোসাইন, বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ, ইসলামী যুব আন্দোলন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনসহ বিভিন্ন ওয়ার্ড, প্রতিষ্ঠান, ইউনিয়ন থেকে আগত সদস্য , কর্মী ও দায়িত্বশীলবৃন্দ।

আপনার মতামত দিন
406Shares

স্যোসাল মিডিয়াতে দেখুন আমাদের সংবাদ

Follow us on Facebook Follow us on Twitter Follow us on Pinterest 0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     একই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ